ক্যামেরা সফটওয়্যার ডাউনলোড করুন 15টি সম্পূর্ণ ফ্রি

নিজেকে ক্যামেরার সামনে আকর্ষণীয়ভাবে তুলে ধরার জন্য ভালো মানের কিছু ক্যামেরা সফটওয়্যার ডাউনলোড করে নিন। অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলের জন্য এইসব সেরা ক্যামেরা apps download করা যাবে। মোবাইলের ক্যামেরা দিয়ে তেমন ভালো ছবি তুলা যায় না। তাই এখান থেকে বিউটি ক্যামেরা এপস ডাউনলোড করে নিতে পারেন। এই ক্যামেরা সফটওয়্যার গুলো দিয়ে আপনি সুন্দর ও এইচডি পিকচার তুলতে পারবেন। মজার ব্যাপার হলো এইসব ক্যামেরা Apps আপনি সম্পূর্ণ ফ্রিতে ডাউনলোড করতে পারবেন।

প্রতিটি মানুষ তার সৌন্দর্যকে বাড়িয়ে তোলার জন্য নানা ধরণের পদক্ষেপ নিয়ে থাকে। আপনিও চাইলে তাদের মতো করে নিজেকে সবার কাছে আকর্ষনীয় করে তুলতে পারেন শুধুমাত্র একটি ক্যামেরা অ্যাপস দিয়ে। গুগল প্লে-স্টোরে অ্যাপগুলো সম্পূর্ণ ফ্রিতে ডাউনলোড করতে পারবেন।

ফেসবুকে নিজের ছবিতে লাইক ও কমেন্ট বাড়ানোর জন্য অনেকই বিউটি ক্যামেরা সফটওয়্যার ডাউনলোড করে থাকে। এইসব ক্যামেরা এপস দিয়ে যেকোনো সুন্দর মুহুর্তকে ক্যামেরা বন্ধি করে রাখতে আর সবার মাঝে শেয়ার করতে পারবেন।

ক্যামেরা সফটওয়্যার

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলের জন্য গুগল প্লে-স্টোরে হাজার হাজার অ্যাপস পাওয়া যায়। কিন্তু সকল ধরণের অ্যাপস ফ্রিতে পাওয়া যায় না ও ভাল মানের হয় না। তাই আমি সেরা কিছু ক্যামেরা সফটওয়্যার নিয়ে তালিকা তৈরি করেছি যেগুলো আপনার জন্য কার্যকরি। এই ক্যামেরা apps গুলো দিয়ে আপনি ছবি তোলার পাশাপাশি এডিটও করতে পারবেন। নিজের ছবি তোলার সময় কোনো ভুল ত্রুটি থাকলে সেটা এডিট করার মধ্যমে সংশোধন করে নিতে পারবেন।

প্রতিটি ক্যামেরা অ্যাপস ডাউনলোড করার জন্য লিংক দেওয়া থাকবে, যার কারনে আপনাকে পরিশ্রম করে খুঁজতে হবে না। আজকের এই ক্যামেরা সফটওয়্যার গুলো শুধুমাত্র এন্ড্রয়েড ডিভাইসের জন্য ডাউনলোড করা যাবে।

১। Cymera Camera

Cymera Camera ক্যামেরা apps

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলের জন্য সেরা একটি ক্যামেরা Apps এর নাম হলো “Cymera Camera”। গুগল প্লে-স্টোর থেকে এই ক্যামেরা অ্যাপস ডাউনলোড করা যাবে। মোবাইলের মাধ্যমে সেলফি তোলার জন্য এটা একটি দারুন ক্যামেরা এপস হতে চলেছে।

এই অ্যাপের মাধ্যমে শুধু পিকচার তোলা হয় না বরং পিকচার এডিটও করা যায়। আর এর জন্য রয়েছে নানা ধরণের ফিচার ও ফিল্টার।

ছবি তোলার সময় আমি বিভিন্ন মোড পাবেন যার মাধ্যমে একই আবহাওয়ায় ভিন্ন ধরণের ছবি ক্যামেরা বন্ধি করতে পারবেন। ভিনটেজ, লিমো, স্কেচ, ন্যাচরাল ও ফিল্ম মোডে ছবি তুলতে পারবেন এই অ্যাপের মাধ্যমে।

সাইমেরা ক্যামেরার মধ্যে আরো নানা ধরণের বৈশিষ্ট্য রয়েছে যার মাধ্যমে সহজেই ছবিগুলো কাস্টমাইজেশন করা যাবে।

ক্রিসমাস এফেক্টস সহ আরো বিভিন্ন ধরণের নতুন এফেক্টস পাওয়া যাবে অ্যাপটির মধ্যে। কোনো ফটো তোলার পর আপনি চাইলে সেটার মধ্যে টেক্সট ও মেমস যুক্ত করতে পারবেন।

এছাড়াও রয়েছে অসাধারণ স্টিকার ও ১৩০ টিরও বেশি ফিল্টার। শুধু তাই নয়, রয়েছে ৭ টিরও বেশি ক্যামেরা লেন্স ও ২০০ টিরও বেশি চুল এবং মেকআপ।

Download

২। Candy Camera – ক্যামেরা সফটওয়্যার ডাউনলোড

Candy Camera ক্যামেরা সফটওয়্যার

সেলফি লাভারসদের কাছে এটা একটি জনপ্রিয় ক্যামেরা এপস। হ্যাঁ! এটা গুগল প্লে-স্টোরে সর্বাধিকবার ডাউনলোড করা হয়েছে। জনপ্রিয় সেলফি ক্যামেরা সফটওয়্যার গুলোর মধ্যে এটা অন্যতম।

আপনি হয়তো এই ক্যামেরা Apps এর নাম অনেকের কাছেই শুনেছেন বা আপনিও কোথাও দেখেছেন। এটা হলো একটি সেলফি ক্যামেরা এপস যা আপনার ছবি তোলার সময় অনেক সুন্দর ও আকর্ষনীয় এডিট চলে আসবে। যার মাধ্যমে অটোম্যাটিক আপনার তোলা সেলফি সুন্দরময় হয়ে যাবে।

অনেকই এই অ্যাপের মাধ্যমে ফটো তুলে ফেসবুকে আপলোড করে থাকে। আর এরজন্য অনেক লাইক ও কমেন্টও আসে।

গুগল প্লে-স্টোরে যত ধরণের সেলফি ক্যামরা রয়েছে তার মাধ্যে এটি আপলোড করার খুব অল্প সময়ের মধ্যেই জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। সফটওয়্যারটির অসাধারণ কিছু ফিল্টার ও বৈশিষ্ট্য রয়েছে যেমন- কোনো ছবি তোলার সাথে সাথে বিউটি হবে ও ত্বক আলোকিত হবে এবং বিউটিফায়িং মোড অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

এছাড়া অসাধারণ স্টিকার পাওয়া যাবে ও সাইলেন্ট মোড রয়েছে যার মাধ্যমে কোনো শব্দ ছাড়াই গোপনে ছবি তুলতে পারবেন। শুধু তাই নয়, রয়েছে কলেজ মোড অন্তর্ভুক্ত ও ইন্টারনেট কানেকশন ছাড়াই ব্যবহারযোগ্য।

Download

৩। BeautyPlus – বিউটি ক্যামেরা সফটওয়্যার

BeautyPlus ক্যামেরা সফটওয়্যার

আপনি হয়তো এই অ্যাপটির নাম শুনেই বুঝে গেছেন এটা কি ধরণের এপস হতে পারে। হ্যাঁ! এটা সেলফি তোলার জন্য সুন্দরতম একটি ক্যামেরা সফটওয়্যার। সেলফি তোলার জন্য এই অ্যাপস আপনার কাছে অনেক পছন্দের হতে পারে।

যেকোনো মানুষের চেহারকে সুন্দর রূপ দেওয়ার জন্য এই সেলফি ক্যামেরা অনেক কার্যকরি। এই অ্যাপটি তৈরি করা হয়েছে ফটো এডিটিং ও সেলফি ক্যাপচারের জন্য।

অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্য এই ক্যামেরা সফটওয়্যার বেশ পছন্দের। এর কারণ হলো এটা অনেক অল্প জায়গার নিয়ে ডিভাইসে সেট হয় এবং সুন্দর ছবি তোলার পাশাপাশি এডীটিং করা যায়। এর কিছু চমৎকার বৈশিষ্ট্য রয়েছে যেমন- কারো চেহারায় কোনো স্পট থাকলে এটা অটোম্যাটিক মুছে ফেলবে ও দোষযুক্ত চেহারায় একটি সুন্দর লুক নিয়ে আসতে সক্ষম হয় এই অ্যাপটি। আরো বিভিন্ন ধরণের ফিচার রয়েছে যেটা আপনাকে মুগ্ধ করবে।

Download

৪। B612 – ক্যামেরা সফটওয়্যার চাই

B612 ক্যামেরা সফটওয়্যার

আপনি যদি আপনার মোবাইলে সেট করা ক্যামেরার মাধ্যমে ছবি তুলে মুগ্ধ না হতে পারেন তাহলে এই অ্যাপটি ডাউনলোড করুন। এটি একটি দুর্দান্ত ক্যামেরা সফটওয়্যার যা ইউজার ফ্রেন্ডলি তৈরি করা হয়েছে।

প্রত্যেক ব্যবহারকারীরা এই অ্যাপের ভালো গুণগুলো তুলে ধরে। কারণ এটা সত্যি একটি ভালো ক্যামেরা এপস।

কোনো ফটো তোলার পরে ফটোটি যদি আরো আকর্ষনীয় করতে চান তাহলে এডিট করার অপশন পাবেন, যার মাধ্যমে ফটোর মধ্যে টেক্সট ও মেমস অন্তর্ভুক্ত করতে পারবেন। এছাড়া ফটোর মধ্যে ডিএসএলআর লুক নিয়ে আসার জন্য এর কিছু ফিল্টার রয়েছে।

এই অ্যাপটি ইন্সটল করলে ১৫০০ টিরও বেশি স্টিকার পাবেন যেগুলো ফটোর মধ্যে বিভিন্ন ভাবে ব্যবহার করতে পারবেন।

আপনার ফটো মডিফাই করার জন্য রয়েছে অসাধারণ এফেক্টস। শুধু তাই নয়, রয়েছে আরো ড্রয়িং এফেক্টস ও স্লাইডারস।

আপনি যদি ফটো তোলার পর একটি শর্ট ভিডিও বানিয়ে ফেলতে চান তাহলে অ্যাপটির মধ্যে কিছু সাউন্ড পাওয়া যাবে। বিভিন্ন মোডে ফটো তোলার সময় আপনি ফুড, ভিনটেজ, লিমো ও ল্যান্ডস্কেপ মোড পাবেন। যেগুলো আপনার ছবিকে আরো আকর্ষনীয় করে তুলবে।

Download

৫। LINE Camera – ক্যামেরা সফটওয়্যার

LINE Camera ক্যামেরা apps

ক্যামেরা অ্যাপগুলোর মধ্যে আপনার ইচ্ছার তালিকায় থাকা সকল ধরণের সেবা পাওয়ার জন্য সেবা পাওয়ার জন্য লাইন ক্যামেরা এপস ডাউনলোড করতে পারেন।

সেলফি তোলার পর সকল ধরণের এফেক্টস পাওয়ার জন্য এটি একটি দুর্দান্ত এপস। এই অ্যাপটির মাধ্যমে আপনার ছবি তোলার আরো অভিজ্ঞতা বেড়ে যাবে।

কোনো ফটো তোলার পর একটু এডিট করে আকর্ষনীয় করার জন্য ক্রপ করতে ও বিভিন্ন এফেক্টস যুক্ত করতে পারবেন।

অ্যাপটি গুগল প্লে-স্টোরে পাওয়া যাবে সম্পূর্ণ বিনামূলে এবং আপনার মোবাইলে ইন্সটল করার পর তেমন বড় কোনো জায়গা নিবে না। যার ফলে অ্যাপটি চালাতে আপনার কোনো সমস্যা হবে না ও খুব স্মুথ ভাবে ব্যবহার করতে পারবেন।

এছাড়া এর মধ্যে কিছু চমকপ্রদ ফিচার রয়েছে যার মধ্যে অন্যতম হলো ছায়াময় ছবিগুলো আলোকিত করা।

আপনি আরো পাবেন মিরোর, গ্রিড মোড ও টাইমার। লাইন ক্যামেরা সফটওয়্যারটির মধ্যে ইংরেজি, চাইনিজ, জার্মান ইত্যাদি দেশের ভাষা সাপোর্ট করে। ২০,০০০ টিরও বেশি ইউনিক স্ট্যাম্প রয়েছে যার মাধ্যমে ফটোগুলো সুন্দর ভাবে সাজাতে পারবেন।

Download

৬। PhotoWonder

PhotoWonder

 

অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসের জন্য সর্বাধিকবার বিনামূল্যে ডাউনলোড করা ফোটো ওয়ান্ডার সফটওয়্যারকে হ্যালো বলুন। সেলফি তোলার পাশাপাশি এটার মাধ্যমে ফটো এডিট করা যাবে।

আপনার সাদামাটা ছবিটিকে দৃষ্টিনন্দন করে তোলার জন্য ফটো ওয়ান্ডার সফটওয়্যার অনেক কার্যকরি। গুগল প্লে-স্টোর থেকে এটি ডাউনলোড করা যাবে।

সুন্দর করে আপনার একটি ফটো তোলার জন্য এই অ্যাপটি ডাউনলোড করতে পারেন। চেহারার কোনো কালো স্পট থাকলে অ্যাপটির মাধ্যমে ছবি তুলুন। আপনার ফটো হবে অনেক ফর্সা ও স্মুথ যা সবার কাছে পছন্দের হবে।

মেয়েদের ফটোগুলো আকর্ষনীয় করার জন্য অ্যাপটির মধ্যে রয়েছে অনেক ধরণের মেকআপ। এর মধ্যে আরো রয়েছে রিয়াল টাইম এফেক্টস ও অ্যামেজিং স্টিকার।

ফটো ক্রপ করা থাকে শুরু করে ঘোরানো ও রিসাইজ করা করতে পারবেন। আপনার ফটোর উজ্জ্বলতা বাড়ানোর জন্য রয়েছে স্যাচুরেশন ও অন্যান্য সরঞ্জাম। এছাড়া বিভিন্ন ফ্রেম ও অন্ধকার চোখের বৃত্ত কালার করাসহ নানা ধরণের টুলস পাবেন।

Download

৭। Camera360 – ক্যামেরা সফটওয়্যার

Camera360 ক্যামেরা সফটওয়্যার

আপনি যদি আপনার আনন্দময় সুন্দর মুহুর্তগুলো ক্যামেরা বন্ধি করতে চান তাহলে ক্যামেরা ৩৬০ এপস ডাউনলোড করতে পারেন। অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্য এটি একটি নিখুঁত ক্যামেরা সফটওয়্যার। আপনার অসাধারণ মুহুর্তগুলো এই ক্যামেরার মাধ্যমে সৃতি হিসেবে ফটো তুলে রেখে দিতে পারেন।

আপনি যদি বন্ধুবান্ধবদের সাথে কোথাও ঘুরতে যান তাহলে এই ক্যামেরা অ্যাপের মাধ্যমে সেই মজার মুহুর্তগুলো ক্যামেরার সামনে নিয়ে আসতে পারেন।

তখন যদি আবহাওয়া অনেক খারাপ থাকে বা নিজের ডিভাইসের ক্যামেরার মাধ্যমে ফটো অসুন্দর উঠে তাহলে এই ক্যামেরা অ্যাপস ব্যবহার করতে পারেন। এই ক্যামেরা সফটওয়্যারের মধ্যে অসাধারণ কিছু ফিচার রয়েছে যার মধ্যে অন্যতম হলো- কাস্টম ইমেজ নিয়ে এডিট করা ও বিভিন্ন স্টিকার আর ইমোজি যুক্ত করা।

আপনার ফটো যদি একটু ডার্ক হয়ে থাকে তাহলে অ্যাপটির সাহায্যে ফটোর উজ্জ্বলতা বাড়াতে পারবেন।

Download

৮। YouCam Perfect

YouCam Perfect

 

সেলফি এক্সপার্টদের জন্য YouCam Perfect একটি দারুন অ্যাপস। আপনার হাসি আনন্দের মুহুর্তগুলো ক্যাপচা করার মাধ্যে মোবাইলে রেখে দিতে পারবেন। আর সেই ফটোগুলো অনলাইনে বন্ধুদের সাথে খুব সহজেই শেয়ার করতে পারবেন।

অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্য এটি বিশেষভাবে ডিজাইন করা হয়েছে ও কোনো ছবি তোলার সময় সমস্যা থাকলে সেটা এই অ্যাপের মাধ্যমে সংশোধন করে নিতে পারবেন।

অ্যাপটি দ্বারা আপনি সেলফি তোলাসহ আরো নানা ধরণের কাজ করতে পারবেন। নিজের বা অন্য যে কারো ফটো নিয়ে এডিটিং কাজ করা যাবে ও বিভিন্ন এফেক্ট এবং প্রচুর স্টিকার আর ইমোজি পাবেন।

এছাড়া এর মধ্যে থাকা কজেল মোড ফিচারটি দিয়ে একটি ফ্রেমের মধ্যে কয়েকটি ফটো যুক্ত করতে পারবেন।

আপনার ভালোবাসার মানুষের ছবিটি খুব সহজেই নিজের ফটোর পাশে যুক্ত করে রেখে দিতে পারবেন।

শুধু ফটো তোলার সময় যদি ব্যাকগ্রাউন্ড খারাপ আসে বা পেছনে অন্য কেউ চলে আসে তাহলে ব্যাকগ্রাউন্ড রিমোভ করে অন্য যেকোনো ব্যাকগ্রাউন্ড যুক্ত করতে পারবেন। শুধু তাই নয়, রয়েছে ভিডিও সেলফি তোলার সুবিধা ও ত্বক-বিউটিফায়িং করার দুর্দান্ত টুলস।

Download

৯। Foodie – Camera for Life

Foodie Camera for life

অ্যান্ড্রয়েড ইউজারদের জন্য গুগল প্লে-স্টোরে থাকা এই অসামান্য ক্যামেরা সফটওয়্যার আপনার সুন্দরতম মুহুর্তগুলো ক্যামেরা বন্ধি করার সুযোগ করে দিবে এবং আপনার জীবনের সৃতিগুলো বার বার বাস্তবে নিয়ে আনতে সক্ষম হবে।

সত্যি এটি অসাধারণ একটি ক্যামেরা apps। সফটওয়্যারটি অনেক হালকা ও ইউজার ফ্রেন্ডলি যেটা সবাই ব্যবহার করে অনেক মজা পাবে, মানে সবার কাছেই ব্যবহারযোগ্য।

অ্যাপটির মাধ্যমে আপনার তোলা ফটোর সকল কিছু মডিফাই করতে পারবেন। সফটওয়্যারটির মধ্যে ৩০ টিরও বেশি আকর্ষণীয় ফিল্টার রয়েছে। যেগুলো আপনার ফটোগুলো আরো সুন্দর করে তুলবে।

এছাড়া রয়েছে টিমার সেট আপ যেটার মাধ্যমে আপনি একটু সময় নিয়ে নিজের ফটো নিজেই ক্যাপচা করতে পারবেন।

Download

১০। SNOW – ক্যামেরা সফটওয়্যার

SNOW

এখন আমি একটি ডিজিটাল মেকআপ শিল্পীর সম্পর্কে আলোচনা করব। যেটা আপনার ছবিগুলো সুন্দর ও আকর্শনীয় করে তুলবে।

এন্ড্রয়েড ইউজারদের কাছে এটি একটি অতুলনীয় ক্যামেরা অ্যাপ্লিকেশন। যা প্রতিটি মানুষের কাছে অনেক পছন্দের।

বিশেষ করে মেয়েরা এই অ্যাপটি বেশি লাইক করে থাকে। কারণ অ্যাপটি দিয়ে অনেক সুন্দর সেলফি তোলা যায় ও বিশেষ মুহুর্তগুলো ক্যামেরা বন্ধি করা যায়।

আপনার চেহারার মধ্যে কোনো দাগ বা কালো স্পট থাকলে এটা সেগুলো মুছে দিবে ও ফটো দুর্দান্ত করে তুলবে। অ্যাপটির মধ্যে কাস্টম টন ও বিউটি এফেক্ট যুক্ত করতে পারবেন।

এছাড়া রয়েছে কিছু পেশাদার মেকআপ ও টুলস। টনস মেমস ও হাজার হাজার স্টিকার পাওয়া যাবে এর মধ্যে। যার মাধ্যমে ফটো এডিট করা ও সুন্দর করা যাবে। আর এই অ্যাপটি ইউজার ফ্রেন্ডলি তৈরি করা হয়েছে।

Download

১১। HD Camera for Android

HD Camera for Android ক্যামেরা এপস ডাউনলোড

এই সফটওয়্যারটির নাম দেখেই আপনি হয়তো বুঝতে পারছেন এটা কি ধরণের অ্যাপস হতে পারে। হ্যাঁ! এটা অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্য একটি দুর্দান্ত এইচডি ক্যামেরা অ্যাপস

যেটার মাধ্যমে হাজার হাজার ফটো ক্যাপচা করা যাবে খুব সহজেই। অনেকই সেলফি বা ফটো তোলার জন্য নানা ধরণের অ্যাপস ডাউনলোড করে থাকে গুগল থেকে, কিন্তু ফটো এইচডি না হওয়ার কারনে তাদের মনটা ভেঙ্গে যায়।

তাই এই তালিকার মধ্যে আমি একটি ছবি তোলার এইচডি ক্যামেরা অ্যাপস নিয়ে হাজির হয়েছি। গুগল প্লে-স্টোর থেকে এটি বিনামূল্যে ডাউনলোড করা যাবে ও মোবাইলে ইন্সটল করা যাবে।

আপনার মন জয় করা এই অ্যাপটির মধ্যে অসাধারণ কিছু ট্রেন্ডি বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা আপনার ফটোগুলো দুর্দান্ত করে তোলার জন্য সক্ষম।

এই ক্যামেরাটির মধ্যে তিনটি মোড রয়েছে ও কাউন্টডাউন টাইমার রয়েছে যেটার মাধ্যমে আপনি একটি নিখুঁত সেলফি বা পিকচার ক্যাপচা করতে পারবেন।

মোবাইলের ভলিউম কী এর মাধ্যমে যেকোনো ফটো তোলার সময় জুম করা যাবে। অ্যাপটি কোলাজ ও ক্রপ অপশন রয়েছে ও দিন-রাত, মেঘাচ্ছন্ন এবং আটো মোড রয়েছে যেটার মাধ্যমে একই আবহাওয়ায় বিভিন্ন রকমের ছবি তোলা যাবে।

Download

১২। VSCO – ক্যামেরা সফটওয়্যার

VSCO ক্যামেরা এপস

অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের কাছে এটি একটি আদর্শ ক্যামেরা এপস। এই ইউজ করলে আপনি একটি প্রোফাইল তৈরি করতে পারবেন ও তাদের কমিউনিটিতে একজন মেম্বার হিসাবে যোগদান করতে পারবেন।

ভিএসসিও অ্যাপটি ডাউনলোড করে ইন্সটল করলে এর মাধ্যমে আপনার ফটোর সুন্দর একটি চেহারা নিয়ে আসা সম্ভব। ফটোর মধ্যে চেহারায় কোনো সমস্যা দেখা গেলে এই অ্যাপের মাধ্যমে ঠিক করে নিতে পারবেন।

ভিএসসিও সফটওয়্যারের মধ্যে অনেক ফিচার রয়েছে যেগুলো দিয়ে আপনার মোবাইলে থাকা ফটোগুলো খুব সহজেই এডিটিং করতে পারবেন ও অনেক টুলস পাবেন।

এছাড়া রয়েছে টনস ফিল্টার যেটা দ্বারা আপনার চেহারার সৌন্দর্জ কয়েকগুণ বাড়িয়ে নিতে পারবেন। আরো রয়েছে চেহারার উজ্জ্বলতা বাড়ানোর বিশেষ কৌশল।

শুধু তাই নয়, পাওয়া যাবে ফিল্ম এক্স টুলস যেটা আপনার ফটোগুলো বিভিন্ন ভাবে উপস্থাপন করতে ব্যবহার করা হয়। আর অ্যাপটি খুব সহজেই ব্যবহারযোগ্য।

Download

১৩। Sweet Snap

Sweet Snap ক্যামেরা এপস

আরো একটি সেলফি এক্সপার্ট অ্যাপস নিয়ে হাজির হয়েছি। এই অ্যাপটির নাম সুইট স্নাপ। সফটওয়্যারটির নামের সাথে কাজেরও অনেক মিল রয়েছে। আপনার ফটো তুলে মিষ্টি একটি চেহারায় রূপান্তর করা যাবে এই অ্যাপের মাধ্যমে।

অনেকের কাছেই এটি একটি জনপ্রিয় ফ্রি অ্যাপস। গুগল থেকে এটি ডাউনলোড করা যাবে। যেকোনো ফটোর মান বাড়িয়ে তোলার জন্য এটা অনেক কার্যকরি।

সুইট স্পান অ্যাপটি ব্যবহারকারীদের কাছে অনেক সহজ মনে হয়, কারণ এটা একটি ইউজার ফ্রেন্ডলি অ্যাপস। আধুনিক যুগের স্মার্ট ছেলে-মেয়েরা এই অ্যাপটি সর্বাধিকবার ডাউনলোড করেছে প্লে-স্টোর থেকে।

সোশ্যাল মিডিয়াতেও এই অ্যাপের মাধ্যমে ছবি তুলে আপলোড করলে অনেক লাইক ও কমেন্ট চলে আসে। এর প্রধান কারণ হলো অ্যাপটি দিয়ে অনেক সুন্দর ও অসাধারণ চমৎকার সেলফি ও ফটো তোলা যায়। এই অ্যাপের মধ্যে একটি সুন্দর বৈশিষ্ট্য হলো ভিজ্যুয়াল এফেক্ট, যেটা কোনো ফটোকে জীবন্ত করার তোলার মতো নানা ধরণের এফেক্ট ব্যবহার করা হয়।

Download

১৪। Camera MX

Camera MX

আপনি যদি একটি ফ্রি স্টক ক্যামেরার সন্ধান করে থাকেন তাহলে ক্যামেরা এমএক্স আপনার জন্য সবচেয়ে ভালো হবে।

অ্যান্ড্রয়েড ইউজারদের কাছে এটি একটি অন্যতম প্রধান ক্যমেরা সফটওয়্যার। প্লে-স্টোর থেকে এটি ফ্রিতে ডাউনলোড করে ব্যবহার করতে পারবেন।

কোনো সেলফি বা ফটোর মান বাড়ানোর জন্য এই অ্যাপটি ব্যবহার করতে পারেন। আর এর কিছু ফিচার রয়েছে যেগুলো ফটোর মান বাড়ানোড় জন্য ব্যবহার করা হয়ে থাকে। যেমন- কোনো ফটো সৌন্দর্জ বাড়ানোর জন্য অটো-অপ্টিমাইজেশন ও এইচডিআর ফিল্টার রয়েছে।

এছাড়া সেলফি বা ছবি তোলার জন্য নির্দিষ্ট স্থানে ফোকাস মারার জন্য অটোফোকাস অপশন রয়েছে। আপনি যদি সেলফি বা ছবি তোলার সময় কোনো কালার হাইলাইট করতে চান তাহলে স্প্ল্যাশ এফেক্ট ব্যবহার করতে পারেন।

Download

১৫। Retrica – ক্যামেরা সফটওয়্যার

Retrica ক্যামেরা apps

আপনার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে একটি দৃষ্টিনন্দন গ্যালারী তৈরি করতে এই ক্যামেরা সফটওয়্যার ব্যবহার করতে পারেন।

এই সফটওয়্যারটি আপনার ছবিকে আকর্ষনীয় করে তুলতে সক্ষম হবে। ফলে আপনার মোবাইলের গ্যালারী ও ফেসবুক গ্যালারী হয়ে উঠবে সুন্দরময়। এই রেট্রিকা ক্যামেরা অ্যাপটি শুধু সেলফি তুলে না বরং ছবি সুন্দর করতেও ব্যবহার করা হয়। এই সফটওয়্যারের মধ্যে আপনি ১০০ টিরও বেশি ক্যামেরা ফিল্টার পাবেন।

এছাড়া সেলফি তোলার জন্য বিভিন্ন রকমের টুলস রয়েছে। যেগুলো আপনার ও আপনার বন্ধুদের ছবি আরো দুর্দান্ত করে তুলতে সক্ষম হবে।

শুধু তাই নয়, রয়েছে আরো মজাদার স্টিকার ও একাধিক চেহারার ছবি যুক্ত করার অপশন। সুতরাং চাইলে আপনি অ্যাপটি খুব সহজেই প্লে-স্টোর থেকে ডাউনলোড করতে পারেন।

Download

উপসংহার

অ্যান্ড্রয়েড ইউজারদের জন্য এখানে সেরা ১৫টি ক্যামেরা সফটওয়্যার নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। আপনি এই অ্যাপগুলো গুগল প্লে-স্টোর থেকে বিনামূল্যে ডাউনলোড করতে পারবেন। অনেকেই ক্যামেরা apps ডাউনলোড করার জন্য একটি তালিকা খুঁজে থাকে। তাই আমি একটি ক্যামেরা অ্যাপের তালিকা তৈরি করেছি। এই লিস্টের বাইড়েও আরো নানা রকম ক্যামেরা অ্যাপস পাওয়া যাবে  যেমন- ওপেন ক্যামেরা অ্যাপস, বিউটি ক্যামেরা ইত্যাদি।

Leave a Comment

error: Content is protected !!